মোঃ মিজানুর রহমান- কিশোরগঞ্জ (নীলফামারী)প্রতিনিধিঃনীলফামারী কিশোরগঞ্জ উপজেলায় গরু আমন ধানের দোগছি খাওয়াকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় স্বপ্না বেগম( ২৮) নামে ৬ মাসে এক অন্তঃসত্ত্বা নারীর ২ জমজ শিশু গর্ভপাত হয়ে মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে।ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার(৮ জুলাই) রাত ৮টায় কিশোরগঞ্জ উপজেলার বাহাগিলী ইউপি’র উঃ দুরাকুটি নান্নুর বাজার ফকির পাড়া গ্রামে স্বামী আল- আমিনের বাড়িতে। আল-আমিন ওই গ্রামের মৃত্যু শহিদার রহমানের ছেলে। এ ঘটনায় অন্তঃসত্ত্বা নারী স্বপ্না বেগমের বাবা তৈয়ব আলী বাদি হয়ে শুক্রবার (৯ জুলাই) দুপুরে একই ইউনিয়নের ঊঃ দুরাকুটি পাগলাটারী গ্রামের তোফা মিয়ার ছেলে লাল শাহ্ (৩০)কে প্রধান অভিযুক্ত করে পিতা তোফা (৬০),ছেলে বাবু (২২), লাল শাহে্র ছেলে সাগর (১৮)সহ ৪ জনের নামে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। সরেজমিন ও থানায় লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে,ভিকটিম স্বপ্না বেগম গত শুক্রবার (২জুলাই)বাড়ির পার্শ্ববর্তী ফকির পাড়া দোলায় লাল শাহে্র রোপণকৃত আমন ধানের দোগোছি জমির পাশে গরু ঘাস খাওয়ানোর জন্য বেঁধে রাখেন। বিকেল ৩ টায় গরু নিয়ে আসার জন্য স্বপ্না বেগম সেখানে যান। এসময় গরু ধান খাওয়াকে কেন্দ্র করে লাল শাহ্ ও তার গংরা স্বপ্না বেগম কে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজসহ বেধড়ক মারপিট করেন। এসময় প্রতিবেশীরা তাকে উদ্ধার করে কিশোরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। সেখানে ৩দিন চিকিৎসাধীন অবস্থায় গ্রাম্য শালিসে ২০ হাজার টাকার রফা দফায় সোমবার( ৫ জুলাই) ভিকটিম স্বপ্না বেগম কে বাড়িতে নিয়ে যান।পরে বৃহস্পতিবার( ৮জুলাই)আবার পেট ব্যথা শুরু হলে সন্ধ্যা ৬টায় স্থানীয় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক জমজ ২ শিশুর মৃত্যু ঘোষণা করেন। ওই দিন রাতে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে বাড়িতে নিয়ে গেলে রাত ৮ টার দিকে ২ জমজ মৃত্যু শিশুর জন্ম দেন। এ অবস্থায় রক্তক্ষরণ শুরু হলে ওই রাতেই তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।এ ব্যাপারে লাল শাহ্ পিতা তোফা মিয়া সালিশে মীমাংসার কথাটি স্বীকার করে বলেন,ওই নারী বাড়ি থেকে গরু নিয়ে আসার জন্য দৌঁড় দিলে একাধিকবার জমির আইলে পরে গিয়ে ব্যাথা পেয়ে এমন হয়েছে।কিশোরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি)আব্দুল আউয়াল জানান,অভিযোগ মোতাবেক ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে এবং মামলার প্রস্তুতি চলছে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!